রাউজান সুলতানপুর ৩১শয্যা হাসপাতালকে ৫০ শয্যার আইসোলেশন সেন্টার হিসাবে চালু করা হচ্ছে -ফজলে করিম চৌধুরী এমপি

শফিউল আলম, রাউজানবার্তা :

অচল হয়ে পড়ে থাকা রাউজান সুলতানপুর ৩১ শয্যা হাসপাতালকে ৫০ শয্যার আইসোলেশন সেন্টার হাসপাতাল হিসাবে চালু করা হবে। সুলতানপুর ৩১ শয্যা বিশিস্ট হাসপাতালটি প্রতিষ্টার পর থেকে অচল হয়ে পড়ে থাকে। 

হাসপাতালের চিকিৎসা সরঞ্জাম, আসবাব পত্র, শয্যা অকোজো হয়ে পড়ে। চিকিৎসা সরঞ্জাম, আসবাব পত্র, রোগীদের শয্যা নতুন করে হাসপাতালে আনা হয়েছে। আ্ইসোলেশন সেন্টারের দায়িত্ব পালনকারী চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীদের সুরক্ষা সামগ্রী ও তাদের থাকার জন্য আবাসন সমস্যা নিরসন করা হয়েছে। 

করোনায় আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসার জন্য আমার পুত্র তরুন আওয়ামী লীগ নেতা ফারাজ করিম চৌধুরীর উদ্যোগে সুলতানপুর হাসপাতালকে ৫০ শয্যার আইসোলেন সেন্টার চালু করা হচ্ছে। 

২ জুলাই বৃহস্পতিবার দুপুরে সুলতান পুর ৩১ শর্য্যার হাসপাতালে আইসোলেশন ওয়ার্ড পরিদর্শন কালে রেলপথ মন্ত্রনালয় সর্ম্পকিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এবি এম ফজলে করিম চৌধুরী এমপি সাংবাদিকদের একথা বলেন। 

এসময়ে আরো উপস্থিত ছিলেন রাউজান উপজেলা নির্বাহী অফিসার জোনায়েদ কবির সোহাগ, রাউজান উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ নুরে আলম দীন, রাউজান থানার ওসি কেপায়েত উল্ল্যাহ, রাউজান পৌরসভার ২য় প্যনেল মেয়র জমির উদ্দিন পারভেজ, রাউজান রাউজানের নোয়াপাড়া পাইনিওয়ার হাসপাতালের চেয়্যারম্যান ডাঃ ফজল করিম বাবুল, 

চেয়ারম্যান প্রিয়তোষ চৌধুরী, আবদুল জব্বার সোহেল, বিএম জসিম উদ্দিন হিরু, রাউজান উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি জিল্লুর রহমান মাসুদ,  সেন্ট্রাল বয়েজ অব রাউজানের সভাপতি সাইদুল ইসলাম, সাধারন সম্পাদক ইমতিয়্জা জামাল নকিব।  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*