মুনিরিয়ার সদস্যদের বিরুদ্ধে আরো একটি মামলা, প্রধান মন্ত্রী বরাবরে স্বারকলিপি

শফিউল আলম, রাউজাবোর্তা :

২৭ এপ্রিল শনিবার নির্যাতনের শিকার মেজবাহ উদ্দিন রাউজান থানায় উপস্থিত হয়ে নিজেই বাদী হয়ে মুনিরিয়া যুবতবলীগ কমিটির ১৬ জন সদস্যদের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাতনামা ৩০জনকে আসামী করে রাউজান থানায় মামলা দায়ের করেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, রাউজান পৌরসভার ২নং ওয়ার্ডের গহিরা মোবারকখীল এলাকার মেজবাহ উদ্দিনকে গত ২০১৬ সালের ২১ নভেম্বর সন্দ্ব্যা৭টার সময়ে রাউজানের গহিরা চৌমুহনী এলাকার রাউজান পৌরসভার প্যনেল মেয়র বশির উদ্দিন খানের কার্যলয়ের সামনে মুনিরিয়া যুবতবতলীগ কমিটির সদস্যরা আটক করে বেদমভাবে প্রহার করে।

এই ঘটনার পর ভয়ে মেজবাহ উদ্দিন মামলা করেনি। গত গত ১৭ এপ্রিল আওয়ামী লীগ নেতা মোজ্জামেল হকের উপর হামলা করে মুনিরিয়া যুবতবলীগ কমিটির সদস্যরা। এই সময়ে আওয়ামী লীগ নেতা মোজ্জামেল হককে মুনিরিয়া যুবতবলীগ কুিমটির সদস্যদের হাত থেকে রক্ষা করতে এগিয়ে আসলে মুক্তিযোদ্বা শফিকুল আনোয়ার । মুনিরিয়া যুবতবলীগ কমিটির সদস্যরা মুক্তিযোদ্বা শফিকুল আনোয়ারকে মারধর করে ।

এই ঘটনার পর রাউজানে সাধারন মানুষ মুক্তিযোদ্বারা প্রতিবাদমুখর হয়ে বিক্ষোভ মিছিল, প্রতিবাদ সভা, সাংবাদিক সম্মেলন করে।

বিক্ষুদ্ধ জনতা প্রতিনিয়ত মানববন্দন কর্মসুচি পালন করে আসছে। আজ মুনিরিয়া যুবতবলীগ কমিটির সন্ত্রাসী দের গ্রেফতার ও কাগতিয়ায় জঙ্গি আস্তানা বন্দ্ব করার দাবীতে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধান মন্ত্রী বরাবরে স্বারকলিপি প্রদান করে।

রাউজান থানার সেকেন্ড অফিসার এস আই নুর নবী বলেন, মুনিরিয়া যুবতবলীগ কমিটির সন্ত্রাসী সদস্যদের বিরুদ্বে আওয়ামী লীগ নেতা মোজ্জামেল হক, মুক্তিযোদ্বা শফিকুল আনোয়ার, গাউছিয়া কমিটি বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় যুগ্ন মহাসচিব এডভোকেট মোসাহেব উদ্দিন বখতেয়ার, দরিদ্র রিক্সা চালক শামশুল আলম, হাফেজ আল্লামা নুরুল আবছার, মেজাবাহউদ্দিন সহ হামলার ঘটনায় ৬টি মামলা করা হয়েছে ।

মামলার আসামীদের মধ্যে আবু মেসলেম, মাসুদ, মনসুর, নাসিম, ইব্রাহিম ৫জনকে পুলিশ গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে ।

নিউজ ও বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন:

শফিউল আলম, প্রধান সম্পাদক

সাহেদুর রহমান মোরশেদ, সম্পাদক ও প্রকাশক

মোবাইল- ০১৮১৮-১১৭৪৭০

ইমেইল : raozan786@gmail.com

raozanbarta24.com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*